পিয়ংইয়ংয়ের প্রতিটি মিসাইল সারিন গ্যাসে তৈরি, দাবি জাপানের

আন্তর্জাতিক মহলে উত্তেজনা ছড়িয়ে একের পর এক পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়ে যাচ্ছে উত্তর কোরিয়া। এ ব্যাপারে জাপান দাবি করেছে, পিয়ংইয়ংয়ের প্রত্যেকটি অস্ত্র বিষাক্ত সারিন গ্যাস দিয়ে তৈরি করা হয়েছে। শুধু তাই নয়, জাপানের দাবি অনুসারে, সারিন গ্যাস ভরা ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে হামলা চালানোর সক্ষমতাও রয়েছে উত্তর কোরিয়ার।

আর তা যদি কোনওভাবে হামলা করে উত্তর কোরিয়া তাহলে গোটা বিশ্বে কোটি কোটি মানুষের মৃত্যু হবে বলে দাবি সামরিক পর্যবেক্ষকদের।

 

প্রসঙ্গত, জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে সম্প্রতি দাবি করেন, উত্তর কোরিয়া যেকোনো দিন জাপানের ওপর সারিন গ্যাস হামলা চালাতে পারে। আবে আরও বলেন, ‘আমরা সিরিয়া নিয়ে কথা বলছি। অথচ, উত্তর কোরিয়ারও ক্ষমতা আছে, সারিন গ্যাস হামলা চালানোর। ’

জাপানের প্রধানমন্ত্রীর চাঞ্চল্যকর এই দাবি কোন প্রমাণের ভিত্তিতে করেছেন তা স্পষ্ট করেননি। এরপরও জাপানের এই অভিযোগ পুরোপুরি উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

 

দক্ষিণ কোরিয়ার দীর্ঘদিনের অভিযোগ, ১৯৮০ সাল থেকে রাসায়নিক অস্ত্রভাণ্ডার মজুদ করছে পিয়ংইয়ং। সিউলের দাবি, বর্তমানে পিয়ংইয়ংয়ের কাছে ২৫০০ থেকে ৫০০০ টন রাসায়নিক অস্ত্র রয়েছে।

 

২০১২ সালের একটি প্রতিবেদনে আমেরিকা জানিয়েছিল, বহু দিন ধরে রাসায়নিক কর্মসূচি চালাচ্ছে উত্তর কোরিয়া। তাদের ভাণ্ডারে প্রাণঘাতী নার্ভ গ্যাস রয়েছে।

your add hare

Comments are closed.

     আরো খবর

Our Like Page