মাদক সেবন ও বিক্রিতে লিপ্ত ছিলো ইলিয়াস: সুবাহ

সম্প্রতি সময়ে সঙ্গীতশিল্পী ইলিয়াস হোসাইন ও মডেল-অভিনেত্রী সুবাহ শাহ হুমায়রা আলোচনায় আসেন বিয়ে নিয়ে। জানা যায়, গত ১ ডিসেম্বর পারিবারিক আয়োজনে বিবাহবন্ধনে আবন্ধ হন তারা। আগের বছর ২৩ ডিসেম্বর সুবাহ নিজের ফেসবুকে গায়ক ইলিয়াসের সঙ্গে গায়ে হলুদের দুটি ছবি শেয়ার বিয়ের কথা জানান। তবে এটি সুবাহর প্রথম বিয়ে হলেও ইলিয়াসের তৃতীয় বিয়ে।

আর বিয়ের খবর প্রকাশ্যে আসার পরই তার দ্বিতীয় স্ত্রী করিন নাজ অভিযোগ করেন তাকে ডিভোর্স না দিয়েই ইলিয়াস তৃতীয় বিয়ে করেছেন। এসব নিয়ে বিতর্কের পর পরেই ইলিয়াস দাবি করেছেন, তাকে ফাঁদে ফেলে বিয়ে করেছেন সুবাহ। এমনকি বিয়ের পর তার গায়ে হাতও তুলেছেন অভিনেত্রী। অন্যদিকে সুবাহর দাবি, তার গায়েও হাত তুলেছেন ইলিয়াস। এ নিয়ে থানায় জিডি করেন দুজন দুজনের নামে।

এরপর থেকে কখনো ফেসবুক লাইভে আবার কখনো স্ট্যাটাস সুবাহ ইলিয়াস। আর সেসব নিয়ে নেটদুনিয়ায় চলছে হইচইও। এদিকে ৯ জানুয়ারি সুবাহ দাবি করেছেন, তার স্বামী ইলিয়াস মাদক আসক্ত এবং নারী আসক্ত। এমনকি মদ খেয়ে তাকে গালিগালাজ মারধর করতো। এ নিয়ে একটি অডিওটি ফেসবুকে শেয়ার করেছেন তিনি।

সেখানে ক্যাপশনে লিখেছেন, ইলিয়াস হোসেন আমার বর্তমানে স্বামী যে মাদক খেতো এবং বিক্রি করতো তার নিজের মুখেই শুনে আসুন এই রেকর্ডিংয়ে। ইলিয়াস হোসেন মানে আমার হাজব্যান্ড সব সময় মদ খেয়ে আমাকে গালিগালাজ মারধর করতো। আমার স্বামী ইলিয়াসের কোন কোন মন্ত্রী mp সাথে ভালো সম্পর্ক।

এগুলোও আপনারা জানতে পারবেন রেকর্ড এর মাধ্যমে। এবং সে শুধু মাদকাসক্ত না, সে যে নারীর আসক্ত, সে দুবাই এবং এরাবিয়ান মেয়েদের প্রতি আসক্ত সেটাও সে মুখ দিয়ে বলছে। শুনে দেখুন। আর আমি তাকে মদ খেতে দিতাম না। এটাও শুনে দেখুন। আমার কাছে আরো অনেক প্রমাণ এবং তথ্য আছে। যা ইলিয়াস নিজে মুখে বলেছে এবং করেছে। তার সবই আস্তে আস্তে আমি বের করতে থাকবো ইনশাল্লাহ।

Back to top button