মার্কিন রিপোর্টে সরকারের অত্যাচার-নিপীড়নের ঘটনা প্রমাণিত : রিজভী

হাজার হাজার ডলার খরচ করে লবিস্ট নিয়োগ দিয়েও ক্ষমতাসীনরা নিজেদের অপকর্ম আড়াল করতে পারেনি’ এমন মন্তব্য করে বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, মার্কিন মানবাধিকার রিপোর্টে সরকারের অত্যাচার, নিপীড়নের ঘটনা প্রমাণিত।

বৃহস্পতিবার (১৪ এপ্রিল) রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দুপুরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন রুহুল কবির রিজভী। রিজভী বলেন নিশিরাতের এ সরকার গণতন্ত্র নস্যাৎ করতে আইন-আদালতকে ব্যবহার করে খালেদা জিয়াকে বন্দি করে রেখেছে।

বিএনপির এ নেতা আরও বলেন, ‘আওয়ামী লীগ ক্ষমতাসীন হওয়ার পর থেকে কোনো প্রতিষ্ঠানই স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারে না। জিয়া পরিবারের বিরুদ্ধে ধারাবাহিক মিথ্যাচার করছে। সব মামলা রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত।’

বিএনপির নেতৃত্ব নিয়ে সরকারের ষড়যন্ত্রের বিষয়ে দেশ-বিদেশে সবাই সজাগ’ উল্লেখ করে বিএনপির এ মুখপাত্র বলেন, ‘সরকারের অনাচার যতই ঢেকে রাখার চেষ্টা করুক, তা বিশ্ববাসীর কাছে উন্মোচন হচ্ছে। তারা কোনো কিছু লুকিয়ে রাখতে ব্যর্থ। মেগাপ্রকল্পের নামে লাখ লাখ কোটি টাকা লুটপাটের কারণে বাংলাদেশ ধীরে ধীরে শ্রীলঙ্কার মতো দেউলিয়া হতে যাচ্ছে বলেও দাবি করেন রিজভী।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপু, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, সহ-দপ্তর সম্পাদক মুহাম্মদ মুনির হোসেন প্রমুখ।

Back to top button