বরিশালে বিএনপির ইফতার মাহফিলে প্যাকেট নিয়ে মারামারি

বরিশাল মহানগর বিএনপির ইফতার ও দোয়া-মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে নগরীর জিলা স্কুল মাঠে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে ভার্চুূয়ালী প্রধান অতিথি হিসেবে সংযুক্ত ছিলেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান।

মহানগর বিএনপির আহবায়ক মনিরুজ্জামান ফারুকের সভাপিত্বে এবং সদস্য সচিব মীর জাহিদুল কবিরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য বেগম সেলিমা রহমান, বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস জাহান শিরিন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আকন কুদ্দুসুর রহমান ও মাহবুবুল আলম নান্নু, কেন্দ্রিয় কমিটির সদস্য এবায়দুল হক চাঁন, মেজবাউদ্দিন ফরহাদ ও আবু নাসের মো. রহমতুল্লাহ, ছাত্রদল কেন্দ্রিয় কমিটির সাবেক সভাপতি রাজিব আহসান, জেলা (দক্ষিন) বিএনপির আহবায়ক মজিবর রহমান নান্টু, উত্তর জেলা বিএনপি’র আহবায়ক দেওয়ান মো. শহীদুল্লাহ, মহানগর বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক আলী হায়দার বাবুল, জিয়াউদ্দিন সিকদার জিয়া, আলতাফ মাহমুদ সিকদার ও হাবিবুর রহমান টিপু এবং দক্ষিন জেলা যুবদলের সাধারন সম্পাদক এইচএম তসলিম উদ্দিনসহ অন্যান্যরা।

মহানগর বিএনপির ইফতার মাহফিল হলেও অনুষ্ঠানে মহানগর এবং এর অন্তর্গত ৩০টি ওয়ার্ড বিএনপির নেতাকর্মীসহ উত্তর ও দক্ষিন জেলা বিএনপিসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের কয়েকশ নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
অতিথির বক্তব্যে বেগম সেলিমা রহমান বলেন, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধিনে আগামী নির্বাচন আদায় করতে হবে। এ লক্ষ্যে প্রতিটি নেতাকর্মীকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। সরকার বিরোধী কর্মসূচী কঠোরভাবে বাস্তবায়নের জন্য নেতাকর্মীদের প্রতি আহবান জানান তিনি।

অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে দোয়া-মোনাজাতে দেশ ও জাতীর মঙ্গল এবং বেগম জিয়া ও তারেক রহমানের সু-স্বাস্থ্য কামনা করা হয়।

এদিকে ইফতার অনুষ্ঠানের প্যাকেট ভাগাভাগি নিয়ে অনুষ্ঠানস্থলের পেছনে বিএনপির দুই দল নেতাকর্মী দুই দফায় সংঘাতে লিপ্ত হন। এতে রক্তাত্ব আহত মহানগর ছাত্রদলের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আরিয়ান খান মাসুমকে শের-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি করা হয়।

Back to top button