আমাকে সবসময় হাসতে হয় : মুমিনুল

চট্টগ্রাম টেস্টের ফলাফল নিষ্প্রাণ ড. শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ম্যাচে জয়ের স্বপ্ন দেখলেও বাংলাদেশ সেটা বাস্তব করতে পারেননি শেষ পর্যন্ত। চতুর্থ দিনের শেষ সেশনে ৩৯ রানে দুই লঙ্কান ব্যাটারকে ফেরানো গেলেও পঞ্চম দিনে এসে দ্রুত উইকেট না নিতে পারায় ড্র’তে সন্তুষ্ট থাকতে হলো স্বাগতিকদের।

জেতার আশা জাগিয়ে ম্যাচটা ড্র হলেও অখুশি নন টাইগার অধিনায়ক মুমিনুল হক। ম্যাচ শেষে বেশ হাস্যজ্জ্বল দেখা গেল টাইগার অধিনায়ককে। ম্যাচের প্রেজেন্টেশনে এসে উপস্থাপককে জানিয়েছেন, তিনি সবসময় হাসেন। হাসির কারণ হিসেবে বলেছেন, ‘আমি সবসময় হাসি কারণ, আমাকে হাসতে হয়।’

মুমিনুলের নেতৃত্বে এ পর্যন্ত ১৬টি টেস্ট খেলেছে বাংলাদেশ। যেখানে জয় কেবল ৩টি। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুটি আর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একটি জয়। ড্র দুটি ম্যাচ। যার একটি শেষ হওয়া শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে।

লঙ্কানদের বিপক্ষে এক ইনিংস ব্যাট করেছে বাংলাদেশ। তাতে অবশ্য অধিনায়ক মুমিনুল আর নাজমুল হোসেন শান্ত ছাড়া বাকি ব্যাটাররা করেন দারুণ পারফর্ম। তামিম ইকবালের ১৩৩ রানের ইনিংস, মুশফিকুর রহিমের ১০৫, লিটন দাসের ৮৮ রান ছাড়াও মাহমুদুল হাসান করেন ৫৮ রান। বল হাতে নাঈম হাসানের ৬ উইকেট, তাইজুল ইসলামের ৫ আর সাকিব আল হাসান নিয়েছেন ৪ উইকেট।

লম্বা সময় ধরে অফ-ফর্মে থাকা মুমিনুল হয়তো ঘরের মাঠে রানে ফিরবেন এটাই প্রত্যাশা ছিল সবার। নিজে পারফর্ম করতে না পারলেও বাকিদের বাহবা দিয়েছেন অধিনায়ক।

‘আমরা সত্যিই ভালো খেলেছি, ব্যাটসম্যান ও বোলাররা তাদের কাজ দলগত ভাবে করেছে। দ্বিতীয় ইনিংস নিয়ে কিছুটা হতাশ। সাকিব সত্যিই ভালো বোলিং করেছে, নাঈম অনেকদিন পর খেলছে। সেও সত্যিই ভালো বোলিং করেছে। তাইজুল তার ভূমিকা জানে, সে জানে কন্ডিশন এবং তাকে কীভাবে বল করতে হবে। তারপরও আমাদের উন্নতি করতে হবে, প্রতিটি ক্ষেত্রেই আমাদের অনেক উন্নতি করতে হবে।’

আগামী ২৩ মে থেকে ঢাকার শের ই বাংলা স্টেডিয়ামে শুরু হবে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট।

Back to top button