উড়ছেন আলকারাজ ও শিওনতেক

প্রায় এক দশক হয়ে গেলো, টেনিসে বিগ থ্রির বাইরে কেউ এখন পর্যন্ত থিতু হতে পারেননি। ডমিনিক টিম ও দানিয়েল মেদভেদেভ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতেছেন বটে। তারপরও নতুন জেনারেশনের উত্থান-পতন চলছেই। এর মধ্যেই আশার সঞ্চার হয়ে এলেন কার্লোস আলকারাজ। ১৯ বছর বয়সী এই তরুণকে আগামীর তারকা বলেই ভাবা হচ্ছে। কিছু দিন আগেই টানা ম্যাচে হারিয়েছেন রাফায়েল নাদাল ও নোভাক জোকোভিচকে। ২০০৬ সালের পর সবচেয়ে কম বয়সী হিসেবে ফ্রেঞ্চ ওপেনের চতুর্থ রাউন্ডেও পৌঁছে গেলেন বেশ সানন্দে। সেবাস্তিয়ান কর্ডাকে ৬-৪, ৬-৪, ৬-২ গেমে উড়িয়ে দেন আলকারাজ। খেলার শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত একই আগ্রাসনে খেলে থাকেন তিনি, ‘আমি সবসময় আক্রমণাত্মক থাকি। তাতে যদি হারি বা জিতি সেটা কোনো বিষয় না। কঠিন সময়, কঠিন মুহূর্তের মতোই আমি আমার ছন্দ পুরো ম্যাচে ধরে রাখতে চাই।’ আলকারাজের মতোই নারী এককে উড়েছেন ইগা শিওনতেকও। দাঙ্কা কোভিনিচকে ৬-৩, ৭-৫ গেমে হারিয়ে টানা ৩১ তম জয় তুলে নেন এই পোলিশ। চতুর্থ রাউন্ডে যাওয়ার জন্য অবশ্য কিছুটা ঘাম ঝরাতে হয়। আগের দুই রাউন্ডে সামনে টিকতেই দেননি প্রতিপক্ষকে। তবে এবার খুব একটা সহজে আসেনি এই জয়। চতুর্থ রাউন্ডে তার প্রতিপক্ষে চীনের কিনওয়েন জেং এদিকে, পুরুষ এককে তৃতীয় রাউন্ড পাড়ি দিয়েছে দানিয়েল মেদভেদেভ, নোভাক জোকোভিচ ও রাফায়েল নাদাল। চতুর্থ রাউন্ডে জোকোভিচের প্রতিপক্ষ দিয়েগো শোয়ার্টজমান এবং নাদালের প্রতিপক্ষ ফেলিক্স অজার ইয়াসিম। জোকোভিচ-নাদাল নিজেদের ম্যাচে জিতলেই কোয়ার্টার ফাইনালে মুখোমুখি হবেন একে অপরের।

Back to top button