পদ্মা সেতুতে, ট্রেন চালনায় লাগবে ১৬৭৪ জন

পদ্মা সেতু হয়ে ট্রেন চলবে ঢাকা থেকে যশোর পর্যন্ত। দ্বিতল এ সেতুর নিচ তলায় পৃথক প্রকল্পের মাধ্যমে রেলপথ নির্মাণ করছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। নতুন এ রুটে ট্রেন চালানোর জন্য এক হাজার ৬৭৪টি পদ সৃষ্টির প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে। এদিকে পদ্মা সেতু রেলসংযোগ প্রকল্পে ৩০১ কোটি টাকা খরচ বৃদ্ধির অনুমতি দিয়েছে পরিকল্পনা কমিশন।

বর্তমানে পদ্মা রেলসংযোগ প্রকল্পের আওতায় ঢাকা থেকে যশোর পর্যন্ত ১৭২ কিলোমিটার রেলপথ নির্মাণকাজ চলছে। প্রকল্প বাস্তবায়ন পর্যায়ে অনুমোদন রয়েছে ১৪৬টি পদের। যদিও এর চেয়ে অনেক কম জনবল দিয়ে প্রকল্পের কাজ চালিয়ে নেওয়া হচ্ছে। তবে প্রকল্প বাস্তবায়ন শেষে নতুন এ পথে ট্রেন চালু করতে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ১৬৭৪ জনবল দরকার হবে। এর মধ্যে প্রকৌশল বিভাগে ৮০২টি, মেকানিক্যাল বিভাগে ৮৩টি, সিগন্যাল অ্যান্ড টেলিকমিউনিকেশন বিভাগে ১২৮টি, বৈদ্যুতিক বিভাগে ৯৪টি, রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীতে ৭৮টি পদ থাকছে। এ ছাড়া পরিবহন বিভাগের (ট্রাফিক) ও বাণিজ্যিক বিভাগের (ট্রাফিক) ৪৮৯টি পদ রয়েছে। এই জনবলের মধ্যে ট্রেন চালক, স্টেশন মাস্টার, গার্ড, ওয়েম্যান থেকে শুরু করে সংশ্লিষ্ট সব পদই রয়েছে।

পদ্মা সেতু রেলসংযোগ প্রকল্পের পরিচালক আফজাল হোসেন আমাদের সময়কে বলেন, এসব পদের সংস্থান ডিপিপি/আরডিপিপিতে রয়েছে। এখন পদগুলো সৃজনের প্রস্তাব করা হয়েছে।২৫ জুন চালু হচ্ছে পদ্মা সেতু। এর পরও চলবে রেললাইন স্থাপনের কাজ। দেরিতে কাজ শুরুর কারণে প্রকল্প বাস্তবায়নে আরও সময় লাগবে।

Back to top button