তীব্র অর্থ সংকট, কোটা পেয়েও হজ করা হচ্ছে না লঙ্কান মুসলিমদের

করোনার কারণে গত দুই বছর হজে অংশ নিতে পারেননি বিশ্ব নানা প্রান্তের মুসলিমরা। এবার হজ করার সুবিধা উন্মুক্ত হওয়ায় তারা বেশ উচ্ছ্বসিত ও আনন্দিত। তবে সুযোগ পেয়েও এ বছর হজ করতে পারছেন না তীব্র অর্থসংকটে থাকা শ্রীলঙ্কার মুসলমানরা। খবর আরব নিউজ।

মুসলিম সম্প্রদায়ের সঙ্গে আলোচনার পর দেশটির মুসলিম ধর্মবিষয়ক বিভাগ এই সিদ্ধান্ত নেয়। স্বাধীনতার পর সবচেয়ে কঠিন অর্থনৈতিক সংকটের মুখোমুখি হওয়া রাষ্ট্রটি এক প্রকার বাধ্য হয়েই এ ঘোষণা দেয়।গত মাসে সৌদি আরব চলতি বছরের জন্য বিভিন্ন দেশের হজকোটা বরাদ্দ দেয়। তাতে শ্রীলঙ্কার জন্য ১ হাজার ৫৮৫ জনের কোটা বরাদ্দ হয়েছিল। সব মিলিয়ে পুরো বিশ্বের ১০ লাখ লোক এবার হজ করতে পারবেন বলে জানিয়েছে সৌদি আরবের হজ কর্তৃপক্ষ।

অল সিলন হজ ট্যুর অপারেটর অ্যাসোসিয়েশন এবং হজ ট্যুর অপারেটর অ্যাসোসিয়েশন অব শ্রীলঙ্কা দেশটির মুসলিম ধর্মবিষয়ক বিভাগে এ বিষয়ে একটি চিঠি পাঠায়। তাতে বলা হয়, শ্রীলঙ্কা বর্তমানে তীব্র ডলার সংকটের মুখে পড়েছে। এ পরিস্থিতি ও জনগণের দুর্ভোগের কথা চিন্তা করে এ বছর কাউকে হজের জন্য সৌদি আরব পাঠানো সম্ভব নয়।এ বছরের হজের আয়োজনে কোটার সবাই সৌদি পাঠাতে হলে প্রায় এক কোটি ডলার খরচ হতো। বর্তমান সংকটের মধ্যে শ্রীলঙ্কার জন্য এটা অসম্ভব। তাছাড়া দেশের চলমান আর্থিক অবস্থার কারণে লঙ্কান মুসলমানরা নিজেরাই হজে অংশগ্রহণ করা থেকে পিছিয়ে এসেছেন।

উল্লেখ্য, বৈদেশিক ঋণ পরিশোধের সময়সীমা পার হয়ে যাওয়ায় দ্বীপরাষ্ট্রটি এরই মধ্যে ঋণ খেলাপি হিসেবে চিহ্নিত হয়েছে। সংকটের জেরে এরই মধ্যে দেশটির সরকারও পাল্টে গেছে।

Back to top button