জীবন বাজি রেখে জ্বলন্ত ট্যাংকার ২ কিলোমিটার চালিয়ে নিয়ে গেলেন

সড়কের পাশে পেট্রলপাম্পে রাখা তেলের ট্যাংকারে হঠাৎ আগুন ধরে যায়। বিস্ফোরণ ঘটে ব্যাপক প্রাণহানি ঘটতে পারতো। বড় ধরনের দুর্ঘটনা এড়াতে তাই জীবন বাজি রেখে জ্বলন্ত ট্যাংকারটি চালিয়ে দুই কিলোমিটার দূরে নিয়ে যান চালক। এক পর্যায়ে ট্যাংকারটির আগুন নিভিয়ে ফেলা সম্ভব হয়। ঘটনাটি ঘটেছে পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশের রাজধানী কোয়েটায়।

গত বৃহস্পতিবার দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের খবরে বলা হয়, কোয়েটার কাম্বরানি সড়কের পাশে পেট্রলপাম্পে রাখা ট্যাংকারে হঠাৎ আগুন ধরে যায়। তখন জ্বলন্ত গাড়িটি চালক মুহাম্মদ ফায়সাল চালিয়ে নিয়ে যান, সেটা সিনেমার দৃশ্যের মতোই ছিল। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যাওয়া নিজের ভিডিও সম্পর্কে ফায়সাল বলেন, ‘আমার তখন মনে হচ্ছিল ট্যাংকারটি বিস্ফোরিত হবে, আমি মারা যাব।

আগুন দেখতে পেয়ে আমি দ্রুত গাড়িটি চালিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করি, যদিও দাউ দাউ করে আগুন জ্বলছিল’-যোগ করেন তিনি। ফায়সাল জানান, তিনি গাড়িটি চালিয়ে যাওয়ার সময় ট্যাংকার থেকে কালো ধোঁয়া ও আগুনের শিখা বের হতে দেখে লোকজন চিৎকার করছিলেন, তারা তাকে গাড়ি থামাতে বলেন। তিনি বলেন, ‘আমার প্রথম চিন্তা ছিল মানুষের জীবন বাঁচানো।

তিনি জানান, প্রতিবার যখনই তিনি ট্যাংকার থামাবেন বলে সিদ্ধান্ত নেন, তখন কাছাকাছি কিছু লোক দেখতে পান। এতে তিনি ট্যাংকার চালিয়ে নিতে বাধ্য হন। ফায়সাল বলেন, ‘আমি আমার মৃত্যুর জন্য মানসিকভাবে প্রস্তুত ছিলাম। ট্যাংকারটিতে ১০ হাজার লিটারের বেশি পেট্রল ছিল। শেষ পর্যন্ত আগুন নিভিয়ে ফেলা সম্ভব হয়েছে। ফায়সালের এমন সফল প্রচেষ্টার জন্য তার প্রশংসা করে তাকে পুরস্কৃত করার দাবি জানিয়েছেন অনেকে।

Back to top button