বোমাসদৃশ বস্তুর গায়ে লেখা ‘আমি একা মরবো না.

নাটোর সদরে লক্ষীপুর খোলাবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ের নিকটে হয়বতপুর শহীদ মিনারের সামনে একটি বোমা সদৃশ্য বস্তু কে বা কারা রেখে গেছে। খবর পাওয়র পর পুলিশ ও র‌্যাব সদস্যরা ঘটনাস্থলে ঘিরে রেখেছেন। নাটোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তারেক জুবায়ের জানিয়েছেন, র‍্যাব-৫ এর একটি বম্ব ডিসপোজাল টিম বোমাসদৃশ্য ওই বস্তুটিকে নিষ্ক্রিয় করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

লক্ষীপুর খোলাবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান কালু জানান, গতকাল দিবাগত রাত ১২টার দিকে বাজারের পাহারাদার শহীদ মিনারের সামনে রাখা বোমাসদৃশ্য বস্তুটির পাশে আলো জ্বলতে দেখেন।

তার সন্দেহ হলে বিষয়টি তিনি হাইওয়ে পুলিশকে জানান। হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখেন, লাল রংয়ের বোমাসদৃশ্য বস্তুটির গায়ে একটি কাগজ সাঁটা রয়েছে। তাতে লেখা ‘আমি একা মরবো না, এই এলাকার লোকজনকে সঙ্গে নিয়ে মরবো’। পরে বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান এবং স্থানীয় মেম্বারদের জানানো হলে তারা ঘটনাস্থলে যান এবং বিষয়টি পুলিশকে জানান।
নাটোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তারেক জুবায়ের জানান, বিষয়টি জানার পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে এবং ঘটনাস্থল ঘিরে রাখে। পরে র‍্যাব-৫ এর একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছে।

বর্তমানে ঘটনাস্থল পুলিশ ও র‍্যাব ঘিরে রেখেছে। র‍্যাব ৫-এর একটি টিম এটাকে নিষ্ক্রিয় করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। ইউপি চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান কালু এবং স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা অভিযোগ করেন, আগামী ২৫ শে জুন পদ্মা সেতুর উদ্বোধন বাধাগ্রস্ত করতেই জামায়াতের একটি দল উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে আতঙ্ক সৃষ্টির উদ্দেশ্যে এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছে।

Back to top button