ঘি খাওয়া কাদের জন্য ক্ষতিকর?

বিশুদ্ধ ঘি ত্বক, চুল, হজম এবং হৃৎপিণ্ডের স্বাস্থ্যের জন্য বিশেষ উপকারী। বিশেষজ্ঞরা এ কারণে প্রতিদিন সকালে খালি পেটে এক চামচ ঘি খাওয়ার পরামর্শ দেন। কিন্তু এই ঘি কারও কারও জন্য ক্ষতিকরও। তাই কয়েক ধরণের মানুষের এটি অবশ্যই এড়ানো উচিত। যেমন-

পেটের সমস্যা : আয়ুর্বেদ চিকিৎসকরা বলছেন, যাদের দীর্ঘস্থায়ী বদহজম বা পেটের সমস্যা আছে তাদের ঘি খাওয়া একেবারেই ঠিক নয়।

লিভার সিরোসিসের রোগীদের : লিভার সিরোসিস লিভারের একটি রোগ। এটি সুস্থ লিভার টিস্যু ক্ষতিগ্রস্ত টিস্যু দ্বারা প্রতিস্থাপিত হয়। ফলে লিভার স্থায়ীভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের ঘি খাওয়া উচিত নয়।

​গর্ভাবস্থায় এবং কোলেস্টেরল থাকলে: গর্ভবতীদের প্রথম মাসগুলিতে ঘি খাওয়া উচিত নয়। এছাড়াও, আজকালকার দিনে ঘি খাওয়ার সময় সতর্কতা অবলম্বন করা দরকার। এ ছাড়া অতিরিক্ত ঘি খাওয়ার ফলে শরীরে উচ্চ মাত্রা স্যাচুরেটেড ফ্যাটি অ্যাসিড এবং কোলেস্টেরলের পরিমাণ বেড়ে যেতে পারে, তাই উচ্চ কোলেস্টেরল থাকলে ঘি খাওয়া ঠিক নয়।

​জ্বর হলে : আয়ুর্বেদ চিকিৎসকের মতে, ঘি কফ বাড়াতে কাজ করে। তাই জ্বর হলে ঘি খাওয়া এড়ানো উচিত।

হেপাটাইটিসের সমস্যা : হেপাটাইটিসে আক্রান্ত হলে ঘি খেলে অবস্থা আরও খারাপ হতে পারে। কারণ প্রদাহের কারণে লিভার খুব বেশি পরিমাণে হজম করার মতো অবস্থায় থাকে না। সেক্ষেত্রে ঘি খেলে হিতে বিপরীত হতে পারে।

Back to top button