৬৭তম ফিল্মফেয়ারে সেরা যারা

১৯৮৩ সালের বিশ্বকাপে ক্রিকেট ভারতীয় ক্রিকেট দল শিরোপা জিতবে। প্রতিযোগিতা শুরুর আগে খোদ ভারতীয় ক্রিকেটাররাই এ কথা বিশ্বাস করতেন না। অনেকে তো গ্রুপ পর্ব শেষে ঘুরতে যাওয়ার বিমান টিকিটও কেটে রেখেছিলেন। কিন্তু অবিশ্বাস্যভাবে সেই দলই শিরোপা জিতে ঘরে ফেরে।

ক্রিকেটের নানা ঘটনা, ক্রিকেটারদের অনেকগুলো বায়োপিক হওয়া বলিউডে সেই ঘটনা নিয়ে যে এত দিন সিনেমা হয়নি, সেটা বড় আশ্চর্য। তবে ১৯৮৩ সালের বিশ্বকাপ জয়ের সেই ঘটনা পর্দায় নিয়ে আসেন কবীর খান। গত বছর মুক্তি পায় তার বহুল প্রতীক্ষিত সিনেমা ‘৮৩’।

ছবিতে বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক কপিল দেবের চরিত্রে অভিনয় করে ভূয়সী পান রণবীর সিং। অভিনেতা এবার জিতলেন পুরস্কার। ৬৭তম ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ডসে সেরা অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছেন রণবীর। গত মঙ্গলবার রাতে মুম্বাইতে এ পুরস্কার ঘোষণা করা হয়।

পুরস্কারে সেরা অভিনেত্রী হয়েছেন কৃতি শ্যানন। ওটিটিতে মুক্তি পাওয়া সিনেমা ‘মিমি’-তে অভিনয় করে সাধারণ দর্শক থেকে আলিয়া ভাট, বিদ্যা বালানের মতো তারকাদের প্রশংসা কুড়িয়ে ছিলেন কৃতি। অনেকেই ধারণা করেছিলেন, ফিল্মফেয়ারে সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার তিনিই বাগাবেন। সেটাই সত্যি হলো। রণবীরকে পুরস্কার তুলে দেন তার স্ত্রী অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন।

দীপিকা ‘৮৩’-তেও রণবীরের স্ত্রীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন। ছবির অন্যতম প্রযোজকও তিনি। পুরস্কার নেওয়ার পর স্ত্রীকে জড়িয়ে ধরেন অভিনেতা। পুরস্কার পেয়ে প্রতিক্রিয়ায় রসিকতা করে রণবীর বলেন, ‘আমি কীভাবে তোমাকে শুভকামনা জানাব- রণবীর সিং পাওয়ার্ড বাই দীপিকা পাড়ুকোন!’

ফিল্মফেয়ারের ব্ল্যাক লেডির ছবি শেয়ার করে মজা করেছেন সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার পাওয়া কৃতিও, ‘আজ থেকে আমাকে আর একা ঘুমাতে হবে না। অবশেষে ব্ল্যাক লেডিকে পেয়েছি।’

সমালোচকদের বিবেচনায় সেরা অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছেন ভিকি কৌশল। সুজিত সরকারের ছবি ‘সর্দার উধাম’-এর জন্য এ পুরস্কার পেয়েছেন তিনি।অন্যদিকে আরেকটি প্রশংসিত ছবি ‘শেরনি’র জন্য সমালোচকদের দৃষ্টিতে সেরা অভিনেত্রী হয়েছেন বিদ্যা বালান। সেরা জনপ্রিয় চলচ্চিত্র হয়েছে ওটিটিতে মুক্তি পাওয়া সিদ্ধার্থ মালহোত্রা ও কিয়ারা আদভানি অভিনীত ‘শেরশাহ’।

সমালোচকদের দৃষ্টিতে সেরা ছবি ‘সর্দার উধাম’। কারগিল যুদ্ধে নিহত ভারতীয় সেনা সদস্য বিক্রম বাত্রার জীবন অবলম্বনে নির্মিত ‘শেরশাহ’র জন্য সেরা নির্মাতার পুরস্কার পেয়েছেন বিষ্ণু বর্ধন।

একনজরে ৬৭তম ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ডস সেরা পরিচালক : বিষ্ণু বর্ধন, সেরা ছবি (জনপ্রিয় ক্যাটাগরি) : শেরশাহ, সেরা ছবি (সমালোচক ক্যাটাগরি) : সর্দার উধাম, সেরা পার্শ্ব অভিনয়শিল্পী (পুরুষ) : পঙ্কজ ত্রিপাঠি (মিমি), সেরা পার্শ্ব অভিনয়শিল্পী (নারী) : সাই তামহাঙ্কর (মিমি), আজীবন সম্মাননা পুরস্কার : সুভাষ ঘাই।

Back to top button