মিরাজ কান্ডে বিব্রত বিসিবি

গত দুদিন মেহেদি হাসান মিরাজ ইস্যুতে বাংলাদেশ ক্রিকেটে ঝড় বয়ে গেছে। চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের টিম ম্যানেজমেন্টের সাথে মিরাজের দ্বন্দ্বের ঘটনায় বিব্রত দেশের ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। চট্টগ্রাম পর্ব শেষে দুই পক্ষেরই শুনানি করবে বিসিবি ও বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল।

অধিনায়কত্ব থেকে সরানোর কারণে মিরাজ দল ছেড়ে চলে যেতে চান। বোর্ডের হস্তক্ষেপে দুই পক্ষ আলোচনার মাধ্যমে অবশ্য সমাধান হয়। তার আগে বিষয়টি হয়ে ওঠে টক অব দ্য টাউন।

বিসিবি পরিচালক ও বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের প্রধান শেখ সোহেল মনে করছেন, এই ঘটনায় দুই পক্ষেরই দোষ আছে। তিনি বলেন, ‘আসলে কালকে আমরা ঘটনাটা শুনলাম। আমরা আলাপ আলোচনা করেছি, আমি ছিলাম, মল্লিক ভাইও ছিল। সবার সঙ্গে কথা বলার পর আমরা যেটা দেখেছি- মিরাজেরও এখানে ভুল আছে, ম্যানেজমেন্টেরও ভুল আছে। দুজনই কিন্তু হিসেবে দোষী সাব্যস্ত হয়।’

মিরাজের মত তারকা ক্রিকেটারের এমন কার্যক্রমে বোর্ড বেশ বিব্রত। শেখ সোহেল বলেন, ‘মিরাজের মতো জাতীয় দলের এবং উঁচু মানের ক্রিকেটার হয়ে টুর্নামেন্ট চলাকালীন এই ভূমিকাটা রাখা ঠিক হয়নি। তার আরও অপেক্ষা করা উচিত ছিল। যেহেতু আমরা ছিলাম সে অপেক্ষা করতে পারত।’

তবে ফ্র্যাঞ্চাইজির ভূমিকাতেও সন্তুষ্ট নয় গভর্নিং কাউন্সিল। শেখ সোহেল জানিয়েছেন, চট্টগ্রাম পর্ব শেষে ঢাকায় ফেরার পর দুই পক্ষেরই শুনানি হবে।তিনি বলেন, ‘এখানে ফ্র্যাঞ্চাইজিরও সমস্যা আছে, আমি তাদেরও ছাড় দেবো না।

তাদের শুনানি হবে কয়েকদিনের মাঝে। দুই পক্ষ নিয়েই আমরা শুনানি করব। এখানে ফ্র্যাঞ্চাইজিরও ধৈর্য্য ধরা উচিত ছিল। তারা দুই পক্ষই নিজেদের মাঝে আলোচনা করে একটা কিছু করতে পারতো। এত বড় পর্যায়ে যাওয়ার জিনিস ছিল না।’

Back to top button