পাহাড়ে আটকে পড়া সেই যুবক ২ দিন পর উদ্ধার

পাহাড়ের চূড়ায় উঠতে গিয়ে ছিটতে পড়েছিলেন আর বাবু নামের এক যুবক। এরপর ভাগ্যক্রমে একটি ফাটলে আটকে যান।সেখানেই দুই দিন কেটে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে ভারতের সেনাবাহিনী। ভারতের কেরালার পালাক্কাড় জেলার একটি পাহাড়ের ফাটল থেকে বুধবার (৯ ফেব্রুয়ারি) বাবুকে উদ্ধার করা হয়।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, সেনাবাহিনীর একটি দল হেলিকপ্টার দিয়ে তাকে পাহাড় থেকে উদ্ধার করেন। এরপর দ্রুত তাকে খাবার ও পানি দেওয়া হয়। উদ্ধারের পর সেই তরুণের সঙ্গে কয়েকজনকে সেলফি তুলতে দেখা যায়। বিজয়ের চিহ্ন দেখান অনেকে।

আর বাবু নামের ওই তরুণ বলেন, ভারতীয় সেনাবাহিনীকে অনেক ধন্যবাদ। এরপর তিনি সেনা কর্মীদের চুম্বন করে বলেন, ‘ভারতীয় সেনা কি জয়, ভারত মাতা কি জয়’। এর আগে সোমবার (৭ ফেব্রুয়ারি) দুই বন্ধুর সঙ্গে মালাম্পুঝার চেরাদ পাহাড়ে উঠেছিলেন বাবু। একটা সময় বন্ধুরা থেমে গেলেও তিনি উপরে উঠতে থাকেন। একপর্যায়ে তিনি চূড়ায় পৌঁছান।

কিন্তু সেখান থেকে হঠাৎ পিছলে গিয়ে দুটি পাথরের মধ্যে ফাটলে আটকে পড়েন। বাবুকে উদ্ধারে বিমান বাহিনীর সঙ্গে সমন্বয় এবং বেঙ্গালুরু থেকে সেনাবাহিনীকে এয়ারলিফট এনে দেওয়ার জন্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন অভিযানের দায়িত্বে থাকা সেনা কর্মকর্তা। উদ্ধার অভিযানে থাকা সেনাবাহিনীর দলটি সারা রাত হেঁটেছে এবং ভোর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ড্রোন ও বোর্ডে থাকা ক্যামেরার সাহায্যে বাবুর আটকে থাকা নির্দিষ্ট স্থানটি চিহ্নিত করে।

উদ্ধার অভিযান সম্পর্কে লেফটেন্যান্ট জেনারেল এ অরুণ বলেন, মাদ্রা রেজিমেন্টাল দলের দুজন অত্যন্ত দক্ষ সদস্য ২৫০ ফুট নিচে নেমে বাবুর কাছে পৌঁছান। তারা বাবুকে পাহাড়ের নিচের দিকে নিয়ে যাওয়ার পরিবর্তে উপরে টেনে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। তিনি আরও বলেন, ওই পাহাড়টি খুব খাড়া এবং তেমন গাছপালা ছিল না। এমন একটি পাহাড় থেকে ছিটতে পড়ে ফাটলে আটকে থাকাটা বাবুর জন্য চরম সৌভাগ্যের ব্যাপার।

সুত্রঃ এনডিটিভির

Back to top button