জুতা পায়ে শহীদ মিনারে ফুল দিতে এসে সেলফি

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে সারাদেশের মতো গাজীপুরের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারও একুশে ফেব্রুয়ারির প্রথম প্রহর থেকেই সব শ্রেণিপেশার মানুষের ঢল গভীর রাত থেকেই। তবে সেখানে নেই কোনো ধরনের শৃঙ্খলা। যে যার মতো জুতা পায়েই উঠে পড়ছেন বেদিতে।

 সোমবার (২১ ফেব্রুয়ারি) টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার হাসপাতাল প্রাঙ্গণে স্থাপিত শহীদ মিনারে দিনগত রাত ২টার দিকে এই দৃশ্য দেখা যায়।

একুশে ফেব্রুয়ারির প্রথম প্রহরে টঙ্গীর এই শহীদ মিনারে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তিনি শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ ত্যাগ করার পরই স্থানীয়রা শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা জানাতে কোনো শৃঙ্খলা মেনে চলেননি।

এদিকে ভাষাশহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে আসা মানুষদের একটি বড় অংশ পায়ে জুতা-স্যান্ডেল পরেই উঠে গেছেন শহীদ মিনারে। এ সময় সেই অবস্থায়ই তারা বেদিতে দাঁড়িয়ে দলবেঁধে তুলেছেন একের পর এক সেলফি।

ফুল দিতে আসা মনির হোসেন বলেন, আমার ছোট ছেলেকে নিয়ে শহীদ মিনারে ফুল দিতে এসেছি। তবে বেদিতে জুতা পায়ে উঠতে দেখে মনটা খারাপ হয়ে গেল।

Back to top button