হতাশার হার দিয়ে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ শুরু

বাংলাদেশ নারী দলের বিশ্বকাপ মিশন শুরু হলো হার দিয়ে। প্রথমে ব্যাটিং নিয়ে শঙ্কাটা ছিলই। শেষ অবধি সেটাই কাল হলো। ২০৭ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে কোনো উইকেট না হারিয়েই বাংলাদেশ করে ফেলেছিল ৬৯ রান। জয়ের স্বপ্নে বিভোর বাংলাদেশকে হতাশ হতে হয়েছে এরপরই।

 ৪৪ রানের ব্যবধান ৬ উইকেট হারায় বাঘিনীরা। শেষ অবধি বিশ্বকাপে নিজেদের অভিষেক ম্যাচ হারে ৩২ রান। ডানেডিনের ম্যাচে টস হেরে আগে ব্যাটিংয়ে নামে দক্ষিণ আফ্রিকা নারী দল। ২০৮ রানের লক্ষ্য দেয় তারা। জবাবে ১৭৫ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশ নারী দল।

এর আগে বিশ্বকাপের অভিষেক ম্যাচ শুরুর আগে অধিনায়ক জানিয়েছিলেন, বোলিংই তাদের মূল শক্তি। দক্ষিণ আফ্রিকাকে অলআউট করে তার প্রমাণ যেন দিল বাংলাদেশের মেয়েরা।নিউজিল্যান্ডের ডানেডিনে অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে প্রোটিয়া নারীদের ২০৭ রানে অলআউট করেছে নিগার সুলতানা জ্যোতির দল। ম্যাচটিতে টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ।

শুরুতে ব্যাট করতে নেমে ৩০ রানের উদ্বোধনী জুটি পায় দক্ষিণ আফ্রিকা। ৮ রান করা তাজমিন ব্রিটসকে ফিরিয়ে বাংলাদেশকে প্রথম সাফল্য এনে দেন ফারিহা তৃষা। আরেক ওপেনার লরা ওলভার্ড ৫২ বলে করেন ৪১ রান। তাকে বোল্ড করে সাজঘরের পথ দেখান ঋতু মণি।

মাঝে মারিজান ক্যাপ ছাড়া আর কেউই লড়াই করতে পারেননি। ৪৫ বলে ৪২ রান করা এই ব্যাটসম্যানকে আউট করেন জাহানারা আলম। ৪০ বলে ৩৯ রান আসে ক্লো ট্রায়নের ব্যাটে। তাকে আউট করেন পেসার ফারিহা তৃষা।

এই দুইজনের বিদায়ের পর দ্রুতই অলআউট হয়ে যায় দক্ষিণ আফ্রিকার মেয়েরা। ইনিংসের এক বল বাকি থাকতে ২০৭ রানে অলআউট হয়ে যায় তারা। বাংলাদেশের পক্ষে ১০ ওভারে ৩৫ রান দিয়ে তিন উইকেট নেন ফারিহা তৃষা। জাহানারা ও ঋতু মণি পান দুটি করে উইকেট।

Back to top button