বাবার সঙ্গে অভিমান করে শিশুর আত্মহত্যা

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে বাবার সঙ্গে অভিমান করে নুরুল হক নিশাত (৯) নামের এক শিশু আত্মহত্যা করেছে। নিহত শিশুর নাম নুরুল হক নিশাত উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের ৬নম্বর ওয়ার্ডের নুর আলমের ছেলে। শনিবার (৫ মার্চ) দুপুর পৌনে ১টার দিকে উপজেলার মুছাপুর ইউনিয়নের ৮নম্বর ওয়ার্ডের বাগধারা বাজার সংলগ্ন সরকারি আশ্রয়ন কেন্দ্র থেকে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে।

 স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নুরু আলম তিন ছেলে ও স্ত্রী নিয়ে সরকারি আশ্রয়ন কেন্দ্রে বসবাস করে। তাঁর পৈত্রিক বাড়ি উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নে। আজ সকাল থেকে নুর আলম ঘরের পাশে নিজের মাটি ভরাটের কাজ করে। মাটি ভরাটের কাজ শেষে দুপুরের দিকে নুরু আলম আশ্রয়ন কেন্দ্র পার্শ্ববতী একটি দোকানে যায় নাশতা করার জন্য।

এ সময় তাঁর ছোট ছেলে নিশাত বাবার সাথে দোকানে যাওয়ার বায়না ধরে বসে। কিন্তু বাবা তাকে দোকানে না নিয়ে একটি চিপস্ দিয়ে ঘরে রেখে যায়। এতে সে বাবার ওপর অভিমান করে বসত ঘরের দরজা-জানালা বন্ধ করে জানালার সাথে গামছা পেছিয়ে আত্মহত্যা করে।

কিছুক্ষণ পরে পরিবারের সদ্যরা তাঁর গোঙানির শব্দ শুনে জানালা ভেঙ্গে ঘরে প্রবেশ করলে জানালার সাথে ঝুলানো তাঁর নিথর দেহ পড়ে থাকতে দেখে।কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাজ্জাদ রোমন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত করে পরবর্তীতে এ ঘটনায় আইনগত প্রদক্ষেপ নেওয়া হবে।

Back to top button