হঠাৎ করেই প্লাস্টিক কারখানা হয়ে গেলো সয়াবিন তেলের

ময়মনসিংহের ভালুকার অজপাড়াগাঁয়ের একটি গ্রামে বাইরে প্লাস্টিক কারখানা’র সাইনবোর্ড লাগিয়ে ভেতরে বিভিন্ন নামী দামী ব্রান্ডের মোড়কে সয়াবিন তেলের বোতল বাজারজাত করার অভিযোগে এক কারখানায় অভিযান চালিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত। মঙ্গলবার (৮ মার্চ) দুপুরে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যজিষ্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার ভুমি আব্দুল্লাহ আল বাকীউল বারী উপজেলার ডাকাতিয়া ইউনিয়নের আঙ্গারগাড়া গ্রামের ইন্তারঘাট এলাকায় এ অভিযান পরিচালনা করেন।

এ সময় অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় কারখানা মালিক আরিফ মাহমুদ ভবিষ্যতে এ ধরনের কার্যক্রম থেকে কারখানাটি বিরত থাকবে মর্মে মুচলেকা প্রদান করে। কারখানার বাহিরে বাংলাদেশ প্লাষ্টিক ইন্ড্রাস্ট্রিজ ও গ্র্যান্ডলিফ ইন্ড্রাস্ট্রিজ এর নাম থাকলেও আরিফ মাহমুদ বাংলাদেশ এগ্রো ফুড্ধসঢ়স এর পরিচালক হিসেবে মুচলেকা দেন।

এ সময় মডেল থানার উপপরিদর্শক মতিউর রহমান, উপজেলা স্যানেটারি ইন্সপেক্টর মিজানুর রহমান সহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন। এ ব্যাপারে ডাকাতিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হারুন অর রশিদ জানান, আমাকে এই বিষয়ে প্রশাসনিকভাবে কোন কিছু জানানো হয়নি।

তবে গতকাল রাতে কারখানাটির সন্ধান পেয়ে স্থানীয় প্রশাসনকে অবহিত করার প্রায় ১৪ঘন্টা পরে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করায় এলাকার সাধারণ জনগণের মধ্যে ক্ষোভবিরাজ করছে। প্লাস্টিক কারখানার ভেতরে নকল তেলের কারখানা পরিচলনা করায় জনমনেনানা প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।

সুত্রঃ bd24live.com

Back to top button