কুড়িগ্রামের ভোগডাঙ্গায় দফাদার পদে জামাতের প্রার্থীকে নির্বাচিত করার জোর তৎপরতা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: কুড়িগ্রাম সদরের ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নে দফাদার ( গ্রাম পুলিশ) নিয়োগের জন্য জামায়াতের প্রার্থীকে চুড়ান্ত করতে একটি মহল বানিজ্যে নেমে পড়েছে। এ নিয়ে চলছে এলাকায় চাপা ক্ষোভ। জানা যায়, ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নে দফাদার ( গ্রাম পুলিশ) অবসর গ্রহণের পর ওই পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি হয়।

এর ধারাবাহিকতায় গত ১ মার্চ কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তার কার্যালয়ে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষায় আব্দুল হকের পুত্র তাজুল ইসলাম, আব্দুল করিমের পুত্র দুলাল ও জামায়াত কর্মী নুর ইসলামের পুত্র ছাত্র শিবিরের কর্মী মিজানুর রহমান প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত হন।

পরে তাদের বিষয়ে তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয় কুড়িগ্রাম সদর থানা পুলিশকে। তদন্তাধীন অবস্থায় একটি মহল জামাতপন্থী মিজানুর কে নির্বাচিত করার জন্য ঘোলা পানিতে মাছ শিকারে নেমে পড়েছেন। তবে পুলিশ বলছে প্রার্থীদের বিষয়ে নিবিড়ভাবে তদন্ত চলছে । কুড়িগ্রাম সদরের ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাপ উদ্দিন বলেন, জামাত শিবিরের সমর্থিত কর্মীকে নিয়োগ দিলে দেশ ও জাতির উন্নয়নে ব্যাঘাত ঘটবে।

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, প্রাথমিকভাবে নির্বাচিতদের বিষয়ে পুলিশকে তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। জামাত প্রার্থীর বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

রতি কান্ত রায় (কুড়িগ্রাম)

Back to top button