ভাইয়ের হাতে ভাই খুন

শেরপুরের শ্রীবরদীতে ঘর নির্মাণ উপলক্ষে বিস্কুট দিতে গিয়ে বড় ভাইয়ের হাতে খুন হয়েছেন ছোট ভাই। এ ঘটনায় অভিযুক্ত বড় ভাই আমিনুল ইসলাম বেলাল ও আরেক ছোট ভাই লিটন মিয়াকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার (৯ মার্চ) দুপুরে উপজেলার রাণীশিমুল ইউনিয়নের হিন্দুপাড়া এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। নিহত ও আটক দুজন ওই এলাকার আ. ছালামের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, আ. ছালামের চার ছেলে। দীর্ঘদিন যাবত বড় ছেলে বেলাল হোসেন ও ছোট ছেলে আশরাফুল ইসলামের মধ্যে জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিল। এ নিয়ে তাদের মধ্যে একাধিকবার গ্রাম্য শালিসও হয়েছে।

বুধবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আশরাফুল ঘর নির্মাণ উপলক্ষে বাড়ির সবাইকে বিস্কুট বিতরণ করছিলেন। এ সময় ঘরে থাকা দা দিয়ে আশরাফুলকে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করেন বেলাল। আশপাশের লোকজন আশরাফুলকে উদ্ধার করে শেরপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মৃত্যুর খবর শুনে বাড়ির লোকজন বেলালকে আটক করে পুলিশে দেন। অন্যদিকে আশরাফুলের ছোট ভাই লিটন হাসপাতালে গেলে পুলিশ তাকেও আটক করে।

নিহত আশরাফুলের জ্যাঠাতো ভাই আতাউর রহমান বলেন, ‘নিহত আশরাফুলের স্ত্রী মমেনা বেগম, ছেলে মোমিনুল, মেয়ে মুন্নী ও দুলেনা ঢাকায় থাকে। তারা গার্মেন্টসে চাকরি করে। কেউ বাড়িতে ছিল না। ঘর নির্মাণের জন্য দোয়া নিতে বাড়ির সবাইকে বিস্কুট দেয়। পরে বড় ভাইকে বিস্কুট দিতে গেলে তিনি দা দিয়ে আশরাফুলকে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করেন।’

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে শ্রীবরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিপ্লব কুমার বিশ্বাস বলেন, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালে রাখা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

Back to top button