গত ৫ দিন ধরে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় কাঁপছে তেঁতুলিয়া

দেশের সর্ব উত্তরের জেলা পঞ্চগড়ে দিন দিন বেড়েই চলছে শীতের দাপট। উত্তর দিক থেকে আসা হিম বাতাস আর ঘন কুয়াশার কারণে এ জেলায় দিন দিন তাপমাত্রা হ্রাস পাচ্ছে। আর তাপমাত্রা হ্রাস পাওয়ায় জেলায় কনকনে শীত অনুভূত হচ্ছে। শীতে মানবেতর জীবনযাপন করছেন অসহায় ও শীতার্তরা।

 মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) সকাল ৯টায় পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৯ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা সারাদেশের মধ্য সর্বনিম্ন। গেল ৫ দিন ধরে এ জেলায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বিরাজ করছে বলে আবহাওয়া অফিস নিশ্চিত করেছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, এ জেলায় সন্ধ্যা নামার সঙ্গে সঙ্গে উত্তর দিকে থেকে হিমেল হাওয়া বইতে শুরু করে। পাশাপাশি রাত গভীর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ঘন কুয়াশায় আচ্ছাদিত হয়ে পড়ে পুরো জেলা। তার পর দিন সকাল পর্যন্ত শীত ও কুয়াশায় মোড়ানো থাকে। তবে দিনের বেলা সূর্যের আলো পরিলক্ষিত হলেও তেমন সূর্যের উত্তাপ থাকে না।

এ মাঘ মাসের শীতে মানুষ কাজকর্ম তেমন একটা করতে পারছেন না। শীতের কারণে সময়মতো কাজে যেতে পারছেন না তারা। অন্যদিকে দিন দিন জেলার আধুনিক সদর হাসপাতালসহ বাকি চার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে শীতজনিত রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

বেড়েছে রোগীর চাপ, হিমশিম খেতে হচ্ছে হাসপাতালে কর্তৃপক্ষকে। এছাড়াও কৃষি ক্ষেত্রেও শীতের কারণে শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে। শীত ও কুয়াশার কারণে বোরো বীজতলা, গম ও আলুখেতের ক্ষতির শঙ্কায় রয়েছেন কৃষকরা।

আবহাওয়া অধিদফতর বলছে, উপ-মহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক সমুদ্রচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। পূর্বাভাস অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।

Back to top button